Today is  
 
Untitled Document
শিরোনাম : ||   আইসিসির সদস্যপদ ফিরে পেল জিম্বাবুয়ে      ||   হাইকোর্টে স্থগিত ড. ইউনূসের গ্রেফতারি পরোয়ানা      ||   বাঁকখালী নদীতে কল্পজাহাজ ভাসিয়ে প্রবারণা পূর্ণীমার সমাপ্তি      ||   বিপন্ন সেন্টমার্টিন      ||   আবরারের খুনিদের সর্বোচ্চ শাস্তি হবে: প্রধানমন্ত্রী      ||   উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যুবককে জবাই করে হত্যা      ||   ঘুমধুম ভোটকেন্দ্রে বিশৃঙ্খলা, বিজিবি’র গুলিতে নিহত ২      ||   পুলিশ সুপারের সঙ্গে জেলা ইলেকট্রিশিয়ান শ্রমিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দের সাক্ষাৎ      ||   টেকনাফে বিজিবি-বিজিপি রিজিয়ন পর্যায়ে পতাকা বৈঠক      ||   জেলা ইলেকট্রিশিয়ান শ্রমিক ইউনিয়নের নব-কমিটির শপদ অনুষ্ঠান সম্পন্ন      ||   বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের প্রবারণা পূর্ণিমা শুরু সম্প্রীতির বন্ধনে      ||   শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে রাজনীতি বন্ধে হাসিনা-খালেদাকে বিবাদী করে রিট      ||   টাইফুনে লন্ডভন্ড জাপান, নিহত বেড়ে ১৯      ||   আমাদের কর্তব্য মানুষের পাশে দাঁড়ানো-প্রধানমন্ত্রী      ||   বান্দরবানে প্রবারণা উৎসব শুরু     
বাণিজ্যে ঘাটতি ৯৭ কোটি ৯০ লাখ ডলার
প্রকাশ: 2019-09-19     ভয়েস নিউজ ডেস্ক অর্থনীতি

গত জুলাই মাসে বিভিন্ন পণ্য আমদানিতে বাংলাদেশ ব্যয় করেছে ৪৮০ কোটি ৬০ লাখ ডলার। একই সময়ে বাংলাদেশ বিভিন্ন দেশে পণ্য রফতানি করে আয় করেছে ৩৮৭ কোটি ৭০ লাখ ডলার। এই হিসাবেই গত জুলাই মাসে সামগ্রিক বাণিজ্য ঘাটতির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৯৭ কোটি ৯০ লাখ ডলার। বাংলাদেশ ব্যাংকের হালনাগাদ প্রতিবেদনে এ তথ্য তুলে ধরা হয়েছে।
বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য বলছে, গত বছরের জুলাই মাসে বাংলাদেশের বাণিজ্য ঘাটতি ছিল ১১৬ কোটি ডলার। এই হিসাবে এক বছরে বাণিজ্য ঘাটতি কমেছে ২০ কোটি ডলার। অবশ্য ২০১৮-১৯ অর্থবছরের পুরো সময়ে বাণিজ্য ঘাটতির পরিমাণ ছিল এক হাজার ৫৪৯ কোটি ডলার। ২০১৭-১৮ অর্থবছরে ঘাটতি ছিল এক হাজার ৮১৭ কোটি ডলার।
এদিকে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রথম মাস জুলাইয়ে বৈদেশিক লেনদেনের চলতি হিসাবে (কারেন্ট অ্যাকাউন্ট ব্যালেন্স) ২৪ কোটি ডলার উদ্বৃত্ত রয়েছে। যদিও গত অর্থবছরের জুলাই মাসে ১৭ কোটি ৯০ লাখ ডলারের ঘাটতি (ঋণাত্মক) ছিল।
বাণিজ্য ঘাটতি কমে আসার পাশাপাশি কারেন্ট অ্যাকাউন্ট ব্যালেন্স উদ্বৃত্ত হওয়াকে দেশের অর্থনীতির জন্য স্বস্তিদায়ক বলে মনে করেন বাংলাদেশ উন্নয়ন গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (বিআইডিএস) গবেষক ড. জায়েদ বখত। তিনি বলেন, ‘তবে এক মাসের তথ্যের ওপর মন্তব্য করা ঠিক হবে না। আগামী দিনগুলোতে যদি আমদানি ব্যয় কমিয়ে আনা সম্ভব হয়, তাহলে দেশ আরও সুফল পাবে। রেমিটেন্স ও রফতানি আয়ের প্রবৃদ্ধি ধরে রাখা গেলে এই অর্থবছর শেষে লেনদেন ভারসাম্যে উদ্বৃত্ত ধরে রাখা সম্ভব হবে।’ তিনি উল্লেখ করেন, খাদ্য শস্য উৎপাদনে গত কয়েক বছরের সাফল্যের ধারা অব্যাহত থাকলে আমদানি ব্যয় কমানো সম্ভব হবে।
গত ২০১৮-১৯ অর্থবছরে চলতি হিসাবের ভারসাম্য বা ব্যালেন্স অফ পেমেন্টে ৫২৫ কোটি ৪০ লাখ ডলারের ঘাটতি (ঋণাত্মক) নিয়ে শেষ হয়। আগের অর্থবছরে অর্থাৎ ২০১৭-১৮ অর্থবছরে ঘাটতি ছিল ৯৫৬ কোটি ৭০ লাখ ডলার।
প্রসঙ্গত,নিয়মিত আমদানি-রফতানিসহ অন্যান্য আয়-ব্যয় চলতি হিসাবের অন্তর্ভুক্ত। এই হিসাব উদ্বৃত্ত থাকার অর্থ— নিয়মিত লেনদেনে দেশকে কোনও ঋণ নিতে হচ্ছে না। আর ঘাটতি থাকার মানে হলো— সরকারকে ঋণ নিয়ে তা পূরণ করতে হয়।
বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, আর্থিক হিসাবে (ফাইন্যান্সিয়াল অ্যাকাউন্ট) ২৪ কোটি ৯০ লাখ ডলার ঘাটতি দেখা দিয়েছে। গত বছরের জুলাই মাসে এই অ্যাকাউন্টে ১৪ কোটি ডলার উদ্বৃত্ত ছিল। অবশ্য জুলাই মাসে সামগ্রিক লেনদেনের ভারসাম্যে (ওভারঅল ব্যালান্স) উদ্বৃত্ত হয়েছে ১২ কোটি ৪০ লাখ ডলার। গত বছরের জুলাইতে এইক্ষেত্রে ১৯ কোটি ৯০ লাখ ডলারের ঘাটতি ছিল।
বাংলাদেশ ব্যাংকের হিসাব মতে, সামগ্রিকভাবে জুলাই মাসে প্রত্যক্ষ বিদেশি বিনিয়োগ (এফডিআই) বেড়েছে। এই বছরের জুলাই মাসে বাংলাদেশে এফডিআই এসেছে ৩৪ কোটি ৪০ লাখ ডলার। গত বছরের জুলাই মাসে এসেছিল ৩৬ কোটি ৮০ লাখ ডলার। এই হিসাবে গত জুলাইয়ের তুলনায় এই বছরের জুলাইতে এফডিআই বেড়েছে ৬ দশমিক ৯৮ শতাংশ। এছাড়া, বাংলাদেশে নিট এফডিআই এসেছে ২১ কোটি ৪০ ডলার। আগের বছরে একই মাসে এসেছিল ২০ কোটি ডলার। এই হিসাবে নিট এফডিআইতেও ৭ শতাংশ প্রবৃদ্ধি হয়েছে।
বাংলাদেশের বিভিন্ন খাতে সরাসরি বিদেশি বিনিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান মুনাফার অর্থ দেশে নিয়ে যাওয়ার পর যেটা অবশিষ্ট থাকে সেটাকেই নিট এফডিআই বলা হয়।
তবে পুঁজিবাজারে বিদেশি বিনিয়োগ (পোর্টফোলিও ইনভেস্টমেন্ট) কমে এসেছে। গত বছরের জুলাই মাসে পুঁজিবাজারে ১ কোটি ৭০ লাখ ডলারের  নিট এফডিআই এসেছিল। এই বছরের জুলাইয়ে এসেছে ৭০ লাখ ডলার। এই বছরের জুলাইতে প্রবাসীদের বিনিয়োগ (ইনভেস্টমেন্ট বাই এনআরবি) এসেছে ২ কোটি ১০ লাখ ডলার। গত বছরের জুলাইতে এসেছিল ২ কোটি ৬০ লাখ ডলার।
কেন্দ্রীয় ব্যাংক বলছে, জুলাই মাসে মধ্য ও দীর্ঘমেয়াদি ঋণ বাবদ বাংলাদেশে এসেছে ৩৮ কোটি ৮০ লাখ ডলার। গত বছরের জুলাইতে এসেছিল ২৬ কোটি ৫০ লাখ ডলার।
এদিকে,  সেবাখাতে বেতন-ভাতা বাবদ বিদেশিদের পরিশোধ করা হয়েছে ৮৭ কোটি ৮০ লাখ ডলার। আর বাংলাদেশ এ খাতে আয় করেছে ৬৩ কোটি ১০ লাখ ডলার।
জুলাইয়ে প্রবাসীদের আয় থেকে রেমিটেন্স এসেছে ১৫৯ কোটি ৮০ লাখ ডলার, যা আগের বছর একই সময়ে ছিল ১৩১ কোটি ৮০ লাখ ডলার। রেমিটেন্সে ২১ দশমিক ২৪ শতাংশ প্রবৃদ্ধি হয়েছে।

অর্থনীতি
ভারতীয় পেঁয়াজের দাম এক লাফে ৮০ টাকা

মিয়ানমার থেকে পেঁয়াজ আমদানি, কমছে দাম

বাণিজ্যে ঘাটতি ৯৭ কোটি ৯০ লাখ ডলার

হঠাৎ বেড়েছে চালের মূল্য

সোনার দাম কমেছে

অর্থনীতির গতির সঙ্গে বন্দরের সক্ষমতা বৃদ্ধি জরুরি

মিয়ানমারের পেঁয়াজ পৌছেছে চট্টগ্রামে

পেঁয়াজের বাজার চড়া, দাম কমেছে ইলিশ-ব্রয়লার মুরগির

শুরু হচ্ছে আমদানি কয়লায় বিদ্যুৎ উৎপাদন

কাঁচা চামড়া রফতানির অনুমতি

আইসিসির সদস্যপদ ফিরে পেল জিম্বাবুয়ে
হাইকোর্টে স্থগিত ড. ইউনূসের গ্রেফতারি পরোয়ানা
বাঁকখালী নদীতে কল্পজাহাজ ভাসিয়ে প্রবারণা পূর্ণীমার সমাপ্তি
বিপন্ন সেন্টমার্টিন
আবরারের খুনিদের সর্বোচ্চ শাস্তি হবে: প্রধানমন্ত্রী
উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যুবককে জবাই করে হত্যা
ঘুমধুম ভোটকেন্দ্রে বিশৃঙ্খলা, বিজিবি’র গুলিতে নিহত ২
পুলিশ সুপারের সঙ্গে জেলা ইলেকট্রিশিয়ান শ্রমিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দের সাক্ষাৎ
টেকনাফে বিজিবি-বিজিপি রিজিয়ন পর্যায়ে পতাকা বৈঠক
জেলা ইলেকট্রিশিয়ান শ্রমিক ইউনিয়নের নব-কমিটির শপদ অনুষ্ঠান সম্পন্ন
বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের প্রবারণা পূর্ণিমা শুরু সম্প্রীতির বন্ধনে
শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে রাজনীতি বন্ধে হাসিনা-খালেদাকে বিবাদী করে রিট
টাইফুনে লন্ডভন্ড জাপান, নিহত বেড়ে ১৯
আমাদের কর্তব্য মানুষের পাশে দাঁড়ানো-প্রধানমন্ত্রী
বান্দরবানে প্রবারণা উৎসব শুরু
‘এখন সবাই আওয়ামী লীগের নৌকায় উঠতে চায়’ তথ্যমন্ত্রী
 

উপদেষ্টা সম্পাদক: আবু তাহের
সম্পাদক: বিশ্বজিত সেন
প্রকাশক: আবদুল আজিজ

 

কক্সবাজার প্রেসক্লাব ভবন (২য় তলা),
শহীদ সরণি (সার্কিট হাউস রোড), কক্সবাজার।
ফোন:
০১৮১৮-৭৬৬৮৫৫, ০১৫৫৮-৫৭৮৫২৩।


ইমেইল :

news.coxsbazarvoice@gmail.com
About Coxsbazar Voice
Advertisement
Contact
Web Mail
Privacy Policy
Terms & Conditions
কক্সবাজার ভয়েস পত্রিকার কোন সংবাদ,লেখা,ছবি বা কোন তথ্য পূর্ব অনুমতি ছাড়া কপি করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
All rights reserved © 2019 COXSBAZAR VOICE Developed by : JM IT SOLUTION